top of page

SIP চলাকালীন বিনিয়োগকারীর মৃত্যু! তাহলে কি পুরো টাকাটাই জলে চলে গেল ? নিয়ম কী বলছে দেখুন

মিউচুয়াল ফান্ডে সিস্টেমেটিক ইনভেস্টমেন্ট প্ল্যান বা এসআইপি-র মাধ্যমে বিনিয়োগ করা হয়। প্রতি মাসে জমা দিতে হয় নির্দিষ্ট পরিমাণ টাকা। মেয়াদ শেষে সুদে আসলে মেলে রিটার্ন। এখন প্রশ্ন হল, এসআইপি শুরু করার পরই যদি বিনিয়োগকারীর মৃত্যু হয়, তাহলে কী হবে? বিনিয়োগকারীর পরিবারকে কি এসআইপি চালিয়ে যেতে হবে?


বিশেষজ্ঞরা বলছেন, পুরোটাই নির্ভর করছে নির্দিষ্ট মিউচুয়াল ফান্ড এবং বিনিয়োগকারীর মধ্যে চুক্তির উপর। এসআইপি শুরুর পর বিনিয়োগকারীর মৃত্যু হলে, চুক্তিতে কী রয়েছে, মৃত ব্যক্তির সম্পত্তি থেকে এসআইপি দেওয়ার বিধান রয়েছে কি না বা এই ধরনের পরিস্থিতিতে কী নিয়ম রয়েছে, তা দেখা হবে।

তবে এসআইপি চালিয়ে যেতেই হবে, এমন কোনও বাধ্যবাধকতা নেই। বিনিয়োগকারী বেঁচে থাকাকালীনই এসআইপি বন্ধ করে দিতে পারেন। এর জন্য জরিমানাও দিতে হয় না।


বিনিয়োগ যে কোনও সময় তুলে নেওয়াও যায়। তবে যদি এসআইপি-র জন্য অটো-পে চালু থাকে তাহলে মিউচুয়াল ফান্ড এমএমসি স্বয়ংক্রিয়ভাবে ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্ট থেকে প্রতি মাসে এসআইপির জন্য টাকা কেটে নেবে। অতএব বিনিয়োগকারীর মৃত্যু হলেও অটো পে-তে এসআইপি চালু থাকবে।


সাধারণত যৌথ বিনিয়োগ হলে, একজন বিনিয়োগকারীর মৃত্যুর পর মিউচুয়াল ফান্ডের সমস্ত হোল্ডিং দ্বিতীয় মালিকের কাছে হস্তান্তর করা হয়। আর একক বিনিয়োগ হলে তা যাবে নমিনির কাছে। এখন যদি একক বিনিয়োগ হয় এবং নমিনি না থাকে, তাহলে? সেক্ষেত্রে সমস্ত হোল্ডিং আইনি উত্তরাধিকারিদের দেওয়া হবে।


এসআইপি বকেয়া না থাকলে যে কোনও সময় রিডিম করা যায়। তবে সেটাও নির্ভর করে মিউচুয়াল ফান্ডের ধরনের উপর। কারণ বেশ কিছু মিউচুয়াল ফান্ডে ন্যূনতম লক ইন পিরিয়ড থাকে। সেক্ষেত্রে রিডিম করলে জরিমানা দিতে হবে।


তাই এসআইপি-র টাকা তোলা যাবে কি না, সবার প্রথমে সেটা দেখা উচিত। লক ইন পিরিয়ড না থাকলে ভাল, আর থাকলে সেই সময়ের পর কিছু নথিপত্র জমা দিয়ে দ্বিতীয় মালিক, নমিনি বা আইনি উত্তরাধিকারির কাছে সমস্ত সম্পত্তি তুলে দেওয়া হবে।

Comments


bottom of page